হবিগঞ্জের আজমিরীগঞ্জে পূর্ব বিরোধের জের ধরে দুই পক্ষের সংঘর্ষে ১ জন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন অন্তত আরও ২৫ জন। তাদেরকে উদ্ধার করে হবিগঞ্জ সদর হাসপাতাল ও উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

শনিবার বিকেল ৩টার দিকে উপজেলার নগর গ্রামে এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

নিহত লুৎফুর রহমান (৫৫) ওই গ্রামের করিম মুন্সির ছেলে।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন আজমিরীগঞ্জ থানার ওসি মো. সাইদুল ইসলাম।

তিনি জানান, ওই গ্রামের মখলিছ মিয়া ও লুৎফুর রহমানের মধ্যে গ্রাম্য অধিপত্য নিয়ে বিরোধ চলে আসছে। এ বিরোধের জের ধরে বেলা ১২টার দিকে দুই গোষ্টির লোকজনের মধ্যে সংঘর্ষ হয়। এতে নারী ও শিশুসহ অন্তত ২৫ জন আহত হন। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করে। পরে আহতদের উদ্ধার করে হবিগঞ্জ সদর হাসপাতাল ও উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়।

ওসি আরও জানান, গ্রাম থেকে পুলিশ ফিরে আসার পর গ্রামের পার্শবর্তী বোরো জমিতে কাজ করতে যান লুৎফুর রহমান। একই সাথে কাজে যান মখলিছ মিয়ার ছেলে মাসুম মিয়া। এ সময় আবারও দুজনের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। এক পর্যায়ে মাসুম মিয়া ও লুৎফুর রহমানের মধ্যে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। এক পর্যায়ে মাসুম মিয়া একটি ইট দিয়ে লুৎফুর রহমানের মাথায় আঘাত করলে তিনি গুরুতর আহত হন। স্থানীয় লোকজন তাকে উদ্ধার করে আজমিরীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে চিকিৎসক লুৎফুর রহমানকে মৃত ঘোষণা করেন।