ঝালকাঠির কাঁঠালিয়ায় এক গৃহবধূকে ধর্ষণ ও মারধরের মামলায় পুলিশের এসআই (উপপরিদর্শক) মো. আলমগীর হোসেনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এর আগে বৃহস্পতিবার রাতে ভুক্তভোগী গৃহবধূ বাদী হয়ে এসআই আলমগীর হোসেনের বিরুদ্ধে ধর্ষণ, নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে থানায় মামলা করেন।

পরে শুক্রবার সকালে কাঁঠালিয়া থানার ওসি (তদন্ত) এইচএম শাহীনের নেতৃত্বে পুলিশ ঝালকাঠির শেখ রাসেল স্টেডিয়াম এলাকা থেকে এসআই আলমগীরকে গ্রেপ্তার করে।

গ্রেপ্তার এসআই আলমগীর হোসেন কাঁঠালিয়া উপজেলার তারাবুনিয়া তদন্ত কেন্দ্রে কর্মরত ছিলেন। তার বাড়ি ভোলা জেলা সদরে।

মামলার বিবরণে জানা গেছে, ব্যবসায়ীর স্ত্রী দুই সন্তান নিয়ে একা এক বাড়িতে বসবাস করেন। তার স্বামী ব্যবসার কাজে চট্রগ্রামে থাকেন। বোনের বাড়িতে যাওয়া আসার সুবাদে তারাবুনিয়া তদন্ত কেন্দ্রের এসআই আলমগীর হোসেনের সঙ্গে পরিচয় হয় ওই নারীর। পরে গত ৩ এপ্রিল সোমবার রাতে ভুক্তভোগীর বাড়িতে যায় এসআই আলমগীর হোসেন। সেখানে গিয়ে তাকে ধর্ষণ এবং মারধর করে সে।

কাঁঠালিয়া থানার ওসি মুরাদ আলী জানান, এ ঘটনায় থানায় ধর্ষণ, নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে একটি মামলা হয়েছে। আসামি এসআই আলমগীর হোসেনকে গ্রেপ্তার করে কোর্টে চালান করা হয়েছে। আদালত তাকে জেল হাজতে প্রেরণ করেছেন। ভুক্তভোগী নারীকে বরিশাল শেরই-বাংলা মেডিকেল কলেজ (শেবাচিম) হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য পাঠানো হয়েছে।