ঈদ সামনে রেখে মানিকগঞ্জের শিবালয়ের দুই ঘাট ধরে বাড়ি ফেরা বাড়ছে। যাত্রীদের পারাপার নিরাপদ করে আরিচা ও পাটুরিয়া ঘাটে ব্যাপক প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ আব্দুল লতিফ।

রোববার সকালে পাটুরিয়া ঘাটের পদ্মা রিভারভিউয়ে এক মতবিনিময় সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি এ তথ্য জানান। তিনি বলেন, এবার ঘাট এলাকায় যাত্রীদের হয়রানির শিকার হতে হবে না।

সভায় জানানো হয়, ঘাটে যানজট এড়াতে ঈদের আগে-পরে ১০ দিন ট্রাক পারাপার বন্ধ থাকবে। তবে পচনশীল দ্রব্যসহ জরুরি পণ্যবাহী ট্রাক পারাপার চলবে।

পুলিশ সুপার গোলাম আজাদ খান বলেন, আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় বারোবাড়িয়া থেকে পাটুরিয়া ঘাট পর্যন্ত কড়া নিরাপত্তা নেওয়া হবে। দায়িত্ব পালন করবেন পুলিশ ও র‌্যাব, আনসারসহ বিভিন্ন আইন প্রয়োগকারী সংস্থার প্রায় ৮০০ পোশাকধারী সদস্য।

এ সময় জানানো হয়, এবার ঈদে পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া নৌরুটে ২১টি ও আরিচা-নগরবাড়ী নৌরুটে চারটি ফেরি চলাচল করবে। এ ছাড়া পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া রুটে ২৪টি লঞ্চ ও আরিচা-নগরবাড়ী রুটে ৯টি লঞ্চ দিয়ে যাত্রী পারাপার করা হবে।

সভায় আরও বক্তব্য দেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আব্দুল হামিদ, র‌্যাব কর্মকর্তা লেফটেন্যান্ট কর্নেল আরিফুর রহমান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার নুরুনাহার লাবনী, উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি রেজাউর রহমান খান জানু, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) জাহিদুর রহমান, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মিরাজ হোসেন লালন ফকির, বিআইডব্লিউটিসি আরিচা কার্যালয়ের ডিজিএম খালিদ নেওয়াজ, থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহিনুর রহমান প্রমুখ।