ঝিনাইদহে পূর্বশত্রুতার জের ধরে এক মৎস্য চাষির পুকুরে বিষ প্রয়োগ করেছে দুর্বৃত্তরা। এতে প্রায় ২ লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে বলে দাবি করেন ভুক্তভোগী ওই মাছ চাষি

রোববার রাতে সদর উপজেলার হরিশংকরপুর ইউনিয়নের পানামী গ্রামের মধ্যপাড়ায় এ ঘটনা ঘটে। সোমবার সকালে পুকুরে মাছের খাবার দিতে গেলে মাছগুলো ভেসে উঠতে দেখেন ক্ষতিগ্রস্ত মৎস্য চাষি বাবুল মণ্ডল।

বাবুল মণ্ডল জানান, দীর্ঘদিন ধরে বাড়ির পাশের পুকুরে তিনি মাছ চাষ করে আসছেন। আট মাস আগে পুকুরে বিভিন্ন জাতের পাঁচ মণ মাছের পোনা ছাড়েন তিনি। কিছুদিনের মধ্যে মাছগুলো বিক্রি করার আশা করছিলেন। এরই মধ্যে সোমবার সকালে পুকুরে মাছের খাবার দিতে গেলে দেখেন মাছগুলো মরে ভেসে আছে। এতে তার প্রায় ২ লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে।

বাবুল মণ্ডলের অভিযোগ, বেশ কয়েকদিন ধরে প্রতিবেশী ছমির মোল্লার সাথে তার বিরোধ চলে আসছিল। গত ৪ দিন আগে তার পুকুরে ঘিরে দিলে তিনি মাছ মেরে ফেলার হুমকিও দিয়েছিলেন ছমির মোল্লা।

এ ব্যাপারে অভিযুক্ত ছমির মোল্লা বলেন, আমি এই কাজ করিনি। তার দাবি, তৃতীয় কোনো পক্ষ এ ঘটনা ঘটিয়ে তাকে ফাঁসানোর চেষ্টা করছে। এ ঘটনার সুষ্ঠ তদন্ত ও বিচার দাবি করেন তিনি।

ঝিনাইদহ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ মোহাম্মদ সোহেল রানা বলেন, খবর পেয়ে সেখানে পুলিশ পাঠানো হয়েছিল। ক্ষতিগ্রস্থ ওই মৎস্য চাষি লিখিত অভিযোগ দিলে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।