বাগেরহাটের ফকিরহাটে ছাগল খুঁজতে বের হয়ে গ্রামপুলিশ সদস্যের দ্বারা ধর্ষণের শিকার হয়েছেন এক গৃহবধূ। ফকিরহাট উপজেলার শুভদিয়া ইউনিয়নের গ্রামপুলিশ মোস্তফা শেখের (৪০) বিরুদ্ধে ঘনশ্যামপুর গ্রামের ওই গৃহবধূকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে।

এ অভিযোগে গতকাল মঙ্গলবার গভীর রাতে ঘনশ্যামপুর এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এর আগে নির্যাতনের শিকার ঘনশ্যামপুর গ্রামের ওই গৃহবধূ তাকে একমাত্র আসামি করে ফকিরহাট থানায় মামলা দায়ের করেন।

গ্রেপ্তার মোস্তফা শেখ ফকিরহাট উপজেলার ঘনশ্যামপুর গ্রামের আবু বক্কার শেখের ছেলে। তিনি একই উপজেলার শুভদিয়া ইউনিয়নে গ্রামপুলিশ সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।

মামলা সূত্রে জানা যায়, গত সোমবার (১৬ মে) রাত ১০টার দিকে উপজেলার ঘনশ্যামপুর গ্রামে নিজের পালিত ছাগল খুঁজতে বাড়ির বাইরে বের হন ওই গৃহবধূ। গৃহবধূকে একা পেয়ে মোস্তফা ধর্ষণ করেন। পরে গৃহবধূর ডাক-চিৎকারে স্থানীয়রা এগিয়ে এলে মোস্তফা পালিয়ে যান।

ফকিরহাট মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মুহাম্মদ আলিমুজ্জামান বলনে, গৃহবধূর দায়ের করা মামলার একমাত্র আসামি গ্রামপুলিশ মোস্তফা শেখকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। জিজ্ঞাসাবাদ শেষে তাকে আদালতে সোপর্দের প্রক্রিয়া চলছে।

ওসি আরও বলেন, গৃহবধূর শারীরিক পরীক্ষার জন্য সকালে বাগেরহাট জেলা হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।