মুস্তাফিজুর রহমান শেষ টেস্ট খেলেছেন ২০২১ সালে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে। একপ্রকার জোর করেই খেলানো হয় তাকে। ইচ্ছার বিরুদ্ধে খেলায় পারফরম্যান্স খুব একটা ভালো ছিল না। সামনে টেস্ট দলে নেওয়া হলেও যে ভালো খেলবেন সে নিশ্চয়তা নেই।

এরপরও বাঁহাতি এ পেসারকে টেস্টে ফেরানোর প্রশ্ন উঠছে সম্প্রতি। তাসকিন আহমেদ ও শরিফুল ইসলাম চোটে পড়ায় ফিজকে টেস্ট দলে ফেরানোর দাবি জোরালো হচ্ছে। বিশেষ করে ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরের টেস্ট দলে বাঁহাতি এ পেসারকে নেওয়া হবে কিনা জানতে চাওয়া হয় প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীন নান্নু ও অধিনায়ক মুমিনুল হকের কাছে। 

এই দু'জনই বল ঠেলে দেন বিসিবির কোর্টে। প্রধান নির্বাচক জানান, ঢাকায় ফিরে এ ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেবেন তাঁরা। মুমিনুল বোর্ডের ওপর সিদ্ধান্ত নেওয়ার ভার চাপালেও পরোক্ষে বুঝিয়ে দেন মুস্তাফিজকে প্রয়োজন নেই তাঁর, 'আমি জানি না মুস্তাফিজ কয়টা টেস্ট খেলেছে। আর বাংলাদেশের কোনো পেসারই অভিজ্ঞ না। সবাই মিলে ২০টা টেস্ট খেলেছে কিনা জানি না। আমার কাছে মনে হচ্ছে, এখন অভিজ্ঞতা খুব একটা মেটার করছে না ওঁদের কাছে। আর মুস্তাফিজের বিষয়ে বোর্ড সিদ্ধান্ত নেবে। আমাদের প্রথম সারির দুজন পেসার ইনজুরড। এখন সে (মুস্তাফিজ) খেলতে পারলে তো ভালোই হয়। তবে তার ব্যাপারে অনেক কিছুই দেখার আছে- ফিটনেস, কতদিন লাল বলে খেলে না, এগুলো।'