চাঁদপুরের কচুয়ায় জসিম উদ্দিন নামে এক যুবকের মরদেহ দাফনের ১৬ দিন পর কবর থেকে তুলেছে পুলিশ।

বৃহস্পতিবার সকালে উপজেলার নিশ্চিন্তপুর গ্রাম থেকে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. ইবনে আল জায়েদ হোসেনের উপস্থিতিতে কবর থেকে মরদেহ তুলে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়।

জানা যায়, গত ১০ মে ঢাকার স্কয়ার হাসপাতালে মারা যান জসিম উদ্দিন। তাকে মিথানল জাতীয় পানীয় পান করিয়ে হত্যা করা হয়েছে দাবি করে একই এলাকার প্রবাসী শরীফ মজুমদারসহ ৭ জনকে অভিযুক্ত করে একটি মামলা করেন তার স্ত্রী তাহমিনা আক্তার।

বৃহস্পতিবার দুপুরে মামলাটি আমলে নিয়ে চাঁদপুরের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ নাছির উদ্দিন সরোয়ার মরদেহ তোলার আদেশ দেন।

এ সময় কচুয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি, তদন্ত) মো. ছানোয়ার হোসেন, এসআই হাবিবুর রহমানসহ অন্যরা উপস্থিত ছিলেন।