সব ঠিকঠাক থাকলে প্রায় দেড় বছর পর টেস্ট খেলতে নামবেন মুস্তাফিজুর রহমান। গত বছরের ফেব্রুয়ারিতে এই উইন্ডিজের বিপক্ষে হোম সিরিজ খেলা মুস্তাফিজ লাল বল হাতে নেবেন সেই উইন্ডিজের মাটিতে। 

শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে টেস্ট দলে সুযোগ পেলেও কাজে লাগাতে পারেননি মোসাদ্দেক হোসেন। তাকে তৃতীয় স্পিনারের অভাব মেটাতে দলে নেওয়া হয়েছিল। লাল বলে ওই প্রত্যাশা মেটানোর ধারে কাছেও তিনি যেতে পারেননি। ব্যাট হাতেও ছিলেন পুরোপুরি ব্যর্থ। অ্যান্টিগা টেস্টে তার পরিবর্তে নুরুল হাসানের খেলার সম্ভাবনা বেশি।

দেড় বছর আগে বাংলাদেশের মাটিতে টেস্টের নেতৃত্বে ছিলেন জেসন হোল্ডার। এবার তিনি দলে নেই। তার জায়গায় বোলিং আক্রমণে দেখা যেতে পারে রেইমন রেইফারকে। টেস্ট অভিষেক হতে পারে পেসার অ্যান্ডারসন ফিলিপ ও বাঁ-হাতি স্পিনার গুদাকেশ মতির।

স্পট লাইট লিটন দাস

ঘরের মাঠে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে টেস্ট সিরিজ হারলেও ব্যাট হাতে আপন আলোয় উজ্জ্বল ছিলেন লিটন দাস। তিন ইনিংসে একটি সেঞ্চুরি এবং দুটি ফিফটি হাঁকানো লিটন করেছিলেন ২৮১ রান। দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজেও রানে ছিলেন তিনি। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে সিরিজেও লিটনের দিকে তাকিয়ে পুরো দেশ।

স্পট লাইট ক্রেইগ বার্থওয়েট

ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সর্বশেষ টেস্ট সিরিজ জয়ে ব্যাট হাতে আলো ছড়িয়েছিলেন ক্রেইগ বার্থওয়েট। সিরিজে ৩৪১ রান করার সঙ্গে ১ উইকেট নিয়েছিলেন তিনি। পারফরম্যান্সের পুরস্কার হিসেবে বাংলাদেশের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজের জন্য ক্যারিবীয় দলের নেতৃত্বও পেয়েছেন বার্থওয়েট।