রাজশাহীর পুঠিয়ায় ট্রাক ও লেগুনার মুখোমুখি সংঘর্ষে দুজন নিহত হয়েছেন। এ সময় লেগুনার অন্তত ১০ যাত্রী গুরুতর আহত হয়েছেন। 

আজ মঙ্গলবার বিকেল সোয়া তিনটার দিকে ঢাকা-রাজশাহী মহাসড়কের কাঁঠালবাড়ীয়া ঘোষপুকুরের সামনে এই দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন, পুঠিয়া উপজেলার নয়াপাড়া গ্রামের মনছুর আলীর ছেলে সুমনুজ্জামান (৩৮) ও চারঘাট উপজেলার রাশেদুল ইসলাম (৩০)। 

গুরুতর আহত হয়েছেন লেগুনার যাত্রী ভোদর মিয়া (৫৫), রাসেল (২১), জিল্লুর রহমান (২২), সাগর আলী (২২), রনি (২৭), মঞ্জুরা বেগম (৬৫), পিঞ্জিরা (৩০), তুফান (৮) ফেরদৌসী (৪৫) ও আব্দুল্লাহ (১৫)।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, নাটোর থেকে একটি ট্রাক রাজশাহী শহরের দিকে যাচ্ছিল। বিপরীত দিক থেকে যাত্রীবাহী একটি লেগুনা নাটোরের দিকে যাওয়ার সময় মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে যাত্রীবাহী লেগুনা দুমড়েমুচড়ে সড়কের পাশে পড়ে যায়। ভয়াবহ এই দুর্ঘটনায় লেগুনার যাত্রী সুমনুজ্জামান ঘটনাস্থলেই মারা যান। গুরুতর আহতদের পুঠিয়া ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান। কর্তব্যরত চিকিৎসক তাদের সবাইকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠান। পথে মারা যান রাশেদুল ইসলাম।

পবার হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ি ইনচার্জ মোফাক্কারুল ইসলাম জানান, মরদেহ পুলিশ হেফাজতে রাখা আছে। ট্রাকের চালক পালিয়ে গেছেন। এই বিষয়ে থানায় একটি মামলা দায়ের করা হবে।