বগুড়ার শেরপুরে যাত্রীবাহী বাস ও সিএনজিচালিত অটোরিকশার মুখোমুখি সংঘর্ষে একজন নিহত হয়েছেন। তাঁর নাম মো. শফিকুল ইসলাম (৩৫)। তিনি উপজেলার ভবানীপুর ইউনিয়নের ইটালী গ্রামের হযরত আলীর ছেলে।

আজ মঙ্গলবার দুপুরে ঢাকা-বগুড়া মহাসড়কে উপজেলার মির্জাপুর বাজারে এই দুর্ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় সিএনজির আরও চারজন যাত্রী গুরুতর আহত হন। তাদের বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। 

পুলিশ ও নিহতের স্বজনরা জানান, গাইবান্ধা থেকে ছেড়ে যাওয়া ঢাকাগামী অরিন পরিবহনের একটি যাত্রীবাহী বাস মহাসড়কের মির্জাপুর বাজার এলাকায় পৌঁছালে বিপরীতদিক থেকে আসা একটি সিএনজিচালিত অটোরিকশার সঙ্গে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে অটোরিকশার পাঁচজন যাত্রী গুরুতর আহত হন। স্থানীয় লোকজনের সহায়তায় উদ্ধার করে তাদের বগুড়ার শজিমেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সন্ধ্যার দিকে শফিকুল ইসলাম মারা যান। 
গুরুতর আহতরা হলেন- সোহেল রানা (৩০), আইয়ুব আলী (১৮), রজিম মোল্লা (৬০) ও অটোরিকশার চালক মো. রিমন (৪৮)। আহতরা সবাই উপজেলার ইটালী ও ফুলবাড়ী গ্রামের বাসিন্দা।

শেরপুর হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির উপ-পরিদর্শক (এসআই) রজিবুল ইসলাম বলেন, দুর্ঘটনাকবলিত বাস ও অটোরিকশা জব্দ করা হয়েছে। তবে চালক ও হেলপার পালিয়ে গেছেন। এ ঘটনায় শেরপুর থানায় একটি মামলা দায়েরের প্রক্রিয়া চলছে।