গাজীপুরের কাপাসিয়া উপজেলায় যুক্তরাষ্ট্রপ্রবাসী এক ব্যক্তির বাড়িতে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে ডাকাতির ঘটনার অভিযোগ পাওয়া গেছে। শুক্রবার রাত আটটার দিকে উপজেলার চাঁদপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এতে টাকা, স্বর্ণালংকারসহ প্রায় ২২ লাখ টাকা ক্ষয়ক্ষতির কথা জানিয়েছে ভুক্তভোগী পরিবার।

পরিবার ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, চাঁদপুর গ্রামের বাসিন্দা মো. সবুজ ও তার স্ত্রী রেহানা আক্তার দীর্ঘদিন ধরে যুক্তরাষ্ট্রে থাকেন। সম্প্রতি পরিবারের সঙ্গে ঈদ উদ্‌যাপন করতে দেশে আসেন তারা। ঈদের পর যুক্তরাষ্ট্রে চলে যান সবুজ। আরও কিছুদিন বেড়ানোর জন্য গ্রামে থেকে যান স্ত্রী রেহানা আক্তার। গতকাল রাত আটটার দিকে হঠাৎ অস্ত্রসহ তাদের বাড়িতে ঢুকে পড়ে সাত থেকে আটজনের একটি ডাকাত দল। এ সময় পরিবারের সবাইকে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে তারা টাকা, স্বর্ণালংকারসহ প্রায় ২২ লাখ টাকার জিনিস লুট করে নেয়।

রেহানা বলেন, তিনি শুক্রবার বিকেলে এক আত্মীয়ের বাড়িতে যান। বাড়িতে ছিলেন তার শাশুড়ি, ভাশুর ও জা। রাত আটটার দিকে সাত থেকে আটজনের একটি ডাকাত দল তাদের ঘরে ঢুকে পড়ে। এ সময় তার ভাশুরের মাথায় পিস্তল ঠেকিয়ে জিম্মি করে ফেলে সবাইকে। এরপর বিভিন্ন ঘর ভাঙচুর করে লুটে নেয় ৩ লাখ টাকা, ২৫ ভরি সোনা ও প্রায় ৫০০ ইউএস ডলার। ডাকাতি শেষে সবাইকে ভেতরে রেখে বাইরে থেকে মূল ফটকে তালা লাগিয়ে চলে যায় ডাকাতেরা। পরে ৯৯৯-খবর দিলে পুলিশ এসে তাদের উদ্ধার করে।

কাপাসিয়া থানার উপপরিদর্শক (এসআই) মো. নাহিদ বলেন, এখানে পূর্বশত্রুতার একটি বিষয় আছে। ভুক্তভোগী পরিবার দুজনের নাম উল্লেখসহ থানায় একটি মামলা করেছে। আসামিদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।