দাবি আদায়ে চট্টগ্রামে বড় ধরনের শোডাউন করেছেন সর্বস্তরের হকাররা। উচ্ছেদের প্রতিবাদে বুধবার দুপুরের দিকে নগরীর নিউমার্কেট চত্বরে বিক্ষোভ সমাবেশ করেছেন তারা। চট্টগ্রাম মহানগরীর রেজিস্টার্ডকৃত হকার সংগঠনগুলোর যৌথ উদ্যোগে এই কর্মসূচি পালন করা হয়। এসময় হকার্স নেতারা হুশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেন, হকারদের উচ্ছেদ করা হলে আন্দোলনের কঠোর কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে।

হকার্স লীগের সাবেক সভাপতি ঋষি বিশ্বাসের সভাপতিত্ব ও চট্টগ্রাম সম্মিলিত হকার্স ফেডারেশনের সভাপতি মো. মীরন হোসেন মিলনের সঞ্চালনায় সমাবেশে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম ফুটপাত হকার্স সমিতির সভাপতি নুরুল আলম লেদু, হকার্স লীগের সভাপতি প্রবীণ কুমার ঘোষ, ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক মো. শাহ আলম ভূইয়া, মেট্রোপলিটন হকার্স সমিতির সাধারণ সম্পাদক জসীম মিয়া, সিটি হকার্স লীগের সাধারণ সম্পাদক আজগর আলী, টেরি বাজার আন্দরকিল্লা হকার্স সমিতির সভাপতি নুরুল আলম ও সাধারণ সম্পাদক লোকমান হাকিম প্রমুখ।

সমাবেশে বক্তারা বলেন, সাবেক মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দিন সিটি করপোরেশনের পক্ষ থেকে প্রজ্ঞাপন জারির মাধ্যমে হকারদের ফুটপাতে ব্যবসা করার অনুমতি প্রদান করেন। পরে সিটি করপোরেশনের সাবেক প্রশাসক খোরশেদ আলম সুজন হকারদের ব্যবসা করার অনুমতি প্রদান করেন। এরপরও চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন (চসিক) মহানগরীর বিভিন্ন এলাকায় নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও কর্মকর্তারা হকারদের উচ্ছেদ করেন। মালামালের ক্ষয়ক্ষতি করেন। এভাবে চলতে থাকলে চট্টগ্রামের ২০ থেকে ২৫ হাজার হকারকে পরিবার-পরিজন নিয়ে অনাহারে-অর্ধাহারে মরতে হবে।

বক্তারা আরও বলেন, উচ্ছেদের নামে অভিযান ও মালামালের ক্ষয়ক্ষতি সাধন বন্ধ করতে হবে। না হলে আন্দোলনের কঠোর কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে।