বোয়ালমারী থেকে ঢাকাগামী বিআরটিসি বাস ফরিদপুরের ভাঙ্গায় জেলা বাস মালিক গ্রুপের বাধার মুখে ৩৬ ঘণ্টা বন্ধ থাকার পর অবশেষে ফের চালু হয়েছে। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় রাজধানীর গুলিস্তানের উদ্দেশে ছেড়ে যাওয়ার মধ্য দিয়ে এই অচলাবস্থার নিরসন হয়। এতে স্বস্তি ফিরেছে স্থানীয়দের মাঝে। এদিকে, ফের কোনো বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করলে জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

ফরিদপুরের সহকারী পুলিশ সুপার (মধুখালী-বোয়ালমারী ও আলফাডাঙ্গা সার্কেল) সুমন কর জানান, কর্তৃপক্ষের নির্দেশ আছে। বিআরটিসি বাস চালাতে বলা হয়েছে।
পুলিশের এই কর্মকর্তা বলেন, বিআরটিসির বাস কেন চলবে না- এ-সংক্রান্ত কাগজপত্র মালিক সমিতির লোকজনদের প্রশাসনকে দেখাতে বলা হয়েছে। এ ব্যাপারে ফের কোনো বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করলে তাঁদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
এ ব্যাপারে ফরিদপুরের জেলা প্রশাসক অতুল সরকার বলেন, বিআরটিসির বাস চলাচলে সরকারের পরিবহন আইনে মালিক সমিতির রুট পারমিটের কোনো প্রয়োজন নেই।
এদিকে, বুধবার বোয়ালমারী-ভাঙ্গা-ঢাকা মহাসড়কে বিআরটিসির বাস চলাচল বন্ধ করে দেওয়ার প্রতিবাদে মানববন্ধন করেছে ২১টি সংগঠন। বৃহস্পতিবার সকালে বোয়ালমারী পৌর বাস টার্মিনালের সামনে মাঝকান্দি-ভাটিয়াপাড়া আঞ্চলিক মহাসড়কে এই মানববন্ধন করা হয়। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমেও প্রতিবাদের ঝড় ওঠে।
উদ্বোধনের পরদিন বুধবার সকালে বোয়ালমারী থেকে ঢাকামুখী প্রথম ট্রিপেই বিআরটিসি বাস বন্ধ করে দেয় জেলা বাস মালিক গ্রুপ। এ সময় চালক, হেলপার ও যাত্রীদের সঙ্গে অসৌজন্যমূলক আচরণেরও অভিযোগ ওঠে।