হবিগঞ্জে সপ্তাহব্যাপী চলা চা শ্রমিকদের কর্মবিরতির অবসান হয়নি। মঙ্গলবার সকাল থেকে মজুরি বৃদ্ধির দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করছেন শ্রমিকরা ।

শ্রমিকরা বলছেন, রাতের আধাঁরে শ্রমিক নেতারা বাগান কর্তৃপক্ষের সাথে আতাঁত করে ১২০ টাকা মজুরি মেনে নিয়ে তাদের কাজে যোগদান করতে বলেছেন। তাদের অভিযোগ, নেতারা সামনে এসে কথা বলছেন না।

এদিকে সোমবার হবিগঞ্জ জেলা প্রশাসক ইশরাত জাহান লস্করপুর ভ্যালির ২৩ টি চা বাগানের শ্রমিকদের সমাবেশে উপস্থিত হয়ে সমস্যা সমাধানে প্রধানমন্ত্রীর আশ্বাসের কথা জানান। কিন্তু চা শ্রমিকরা কর্মবিরতি প্রত্যাহার করেননি।

বিকেলে চা বাগান পঞ্চায়েত কমিটির নেতাদের সাথে আলোচনার পর চা শ্রমিকরা কর্মবিরতি প্রত্যাহার করবেন কি না সিদ্ধান্ত নেয়া হবে বলে সমাবেশ থেকে জানানো হয় গণমাধ্যম কর্মীদের।

বাংলাদেশ চা কন্যা নারী সংগঠনের সভাপতি খাইরুন আক্তার বলেন, আমরা সকাল থেকেই আন্দোলনে আছি। বিভিন্ন চা বাগান থেকে শ্রমিকরা আমাদের সাথে যোগ দিয়েছে। আমরা ৩০০ টাকা মজুরি না পেলে আন্দোলন চালিয়ে যাব।

বাংলাদেশ চা শ্রমিক ইউনিয়নের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক নৃপেন পাল বলেন, প্রধানমন্ত্রীর আশ্বাসের ভিত্তিতে দেশের অন্যান্য চা বাগানগুলো কাজ শুরু করলেও হবিগঞ্জের লস্করপুর ভেলীর ২৩টি বাগানের শ্রমিকরা এখনো কাজে ফিরেনি। আমরা আশা করছি ভেলী ও পঞ্চায়েত নেতাদের সাথে আলোচনা করে আজ-কালের মধ্যেই শ্রমিকদের কাজে ফিরিয়ে নিতে পারব।