বাংলাদেশ ব্যাংকের ডেপুটি গভর্নর আবু ফরাহ মো. নাছের বলেছেন, দেশের আর্থসামাজিক প্রেক্ষাপটে কটেজ, মাইক্রো, স্মল অ্যান্ড মিডিয়াম এন্টারপ্রাইজ অর্থাৎ সিএমএসএমই অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। এটা কর্মসংস্থান সৃষ্টিসহ দারিদ্র্যদূরীকরণে ভূমিকা রাখে। পুঁজি, অর্থায়ন ও বাজার সম্প্রসারণের মাধ্যমে সিএমএসএমই খাত জাতীয় অর্থনীতিতে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখতে সক্ষম হবে। এজন্য সরকার এ খাতকে অগ্রাধিকার দিচ্ছে।

শনিবার সিলেট বিভাগীয় ব্যবসায়ী সংগঠনের নেতাদের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় তিনি এসব কথা বলেন। সিএমএসএমই খাতে মেয়াদি ঋণের বিপরীতে পুনঃঅর্থায়ন স্কিম ও ক্রেডিট গ্যারান্টি স্কিমের সফল বাস্তবায়ন বিষয়ক মতবিনিময় সভায় তিনি প্রধান অতিথি ছিলেন।

বাংলাদেশ ব্যাংক সিলেটের উদ্যোগে আয়োজিত সভায় সভাপতিত্ব করেন জেলা প্রশাসক মজিবর রহমান। বিশেষ অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ ব্যাংক সিলেটের নির্বাহী পরিচালক মোহাম্মদ মামুনুল হক। স্বাগত বক্তব্য দেন বাংলাদেশ ব্যাংকের পরিচালক এ কে এম এহসান।

বাংলাদেশ ব্যাংকের অতিরিক্ত পরিচালক শামীমা নার্গিসের পরিচালনায় আলোচনায় অংশ নেন সিলেট চেম্বার অব কমার্সের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ফালাহ উদ্দিন আলী আহমদ, বিসিকের উপমহাব্যবস্থাপক মোহাম্মদ সোহেল হাওলাদার, সিলেট চেম্বারের উইমেন সাব-কমিটির চেয়ারপারসন মেহরাজ হুদা, সিলেট উইমেন চেম্বারের সভাপতি স্বর্ণলতা রায়, সেক্রেটারি ফরিদা আলম প্রমুখ।

পরে বাংলাদেশ ব্যাংকের ট্রেনিং হলে সিলেট অঞ্চলের ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোর আঞ্চলিক প্রধানদের সঙ্গে মতবিনিময় করেন ডেপুটি গভর্নর নাছের। বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক মোহাম্মদ মামুনুল হকের সভাপতিত্বে এতে স্বাগত বক্তব্য দেন পরিচালক এ কে এম এহসান।

সিতাংশু শেখর রায় ও হুমায়রা জাহান রুপুর পরিচালনায় আরও বক্তৃতা করেন আইডিএলসির ব্যবস্থাপক ইকবাল শরীফ সাকি, ব্র্যাক ব্যাংক লিমিটেডের এসএমই আঞ্চলিক প্রধান আনোয়ারুল ইসলাম, কমার্শিয়াল ব্যাংক অব সিলোনের সাদ আহমদ চৌধুরী, হাবিব ব্যাংকের কান্ট্রি হেড ফাইয়াজ মৌলা, ইসলামী ব্যাংকের আঞ্চলিক প্রধান সিকদার মো. শিহাবুদ্দিন এবং সোনালী ব্যাংকের জেনারেল ম্যানেজার জামান মোল্লা।