ঢাকা সোমবার, ২০ মে ২০২৪

প্রবাসী স্বামীর নির্দেশে গৃহবধূকে খুন করে ভাড়াটেরা

প্রবাসী স্বামীর নির্দেশে গৃহবধূকে খুন করে ভাড়াটেরা

পাংশা থানা। ফাইল ছবি

রাজবাড়ী প্রতিনিধি

প্রকাশ: ০৭ মার্চ ২০২৪ | ২১:২৪

রাজবাড়ীর পাংশা উপজেলার পাট্টা ইউনিয়নের পাট্টা গ্রামে গৃহবধূ রোজিনা বেগম হত্যার রহস্যের জট খুলেছে। পারিবারিক কলহের জেরে প্রবাসী স্বামীর নির্দেশে ভাড়াটে খুনিরা রোজিনাকে হত্যা করে বলে জানিয়েছে পুলিশ। 

এ ঘটনায় বুধবার রাতে চারজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। উদ্ধার করা হয়েছে একটি একনলা বন্দুক। গ্রেপ্তার ব্যক্তিরা হলেন– একই ইউনিয়নের নাওড়া বনগ্রামের মৃত শশধর বিশ্বাসের ছেলে তুষার বিশ্বাস, নিভা গ্রামের মৃত ছাদেক আলী মণ্ডলের ছেলে হারেজ আলী মণ্ডল ও কামাল মণ্ডলের ছেলে তুহিন মণ্ডল এবং চৌরাপাড়া গ্রামের সুরোত আলী শেখের ছেলে তুহিন মণ্ডল। নিহত রোজিনা পাট্টা গ্রামের দুবাই প্রবাসী লিটন শেখের স্ত্রী। 

পাংশা থানার ওসি স্বপন কুমার মজুমদার জানান, গত ৮ ফেব্রুয়ারি রাতে পাট্টা ইউনিয়নের পাট্টা গ্রামের একটি বাঁশ বাগান থেকে রোজিনার মরদেহ উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনার পর পুলিশ তদন্ত কার্যক্রম শুরু করে। তদন্তে জানা যায়, রোজিনার স্বামী দেশে থাকতে তাদের দাম্পত্য কলহ চলছিল। এ কারণে স্বামী লিটন রোজিনাকে হত্যার জন্য কয়েকজন ব্যক্তিকে ভাড়া করে। ওই দিন রাতে রোজিনা স্বামীর সঙ্গে মোবাইল ফোনে কথা বলছিলেন।

তিনি আরও বলেন, লিটন রোজিনাকে ঘরের বাইরে যেতে বলেন। রোজিনা ঘর থেকে বের হতেই ভাড়াটে খুনিরা অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে বাড়ির দক্ষিণ দিকে বাঁশ বাগানে নিয়ে গলায় ওড়না পেঁচিয়ে ও মাথায় আঘাত করে তাঁকে হত্যা করে। হত্যার আগে তাঁকে বাড়ি থেকে ঘটনাস্থলে নেওয়ার সময় ভয় দেখাতে খুনিরা যে অস্ত্রটি ব্যবহার করেছিল, সেই একনলা বন্দুকটি উদ্ধার করা হয়েছে। আসামিদের বৃহস্পতিবার রাজবাড়ীর আদালতে চালান করা হয়েছে। 


 

আরও পড়ুন

×