সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুর ঘাসের জমি থেকে বাবলু (৪৮) নামে এক ভ্যানচালকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। রোববার সকালে উপজেলার পোতাজিয়া ইউনিয়নের পোতাজিয়া গ্রাম থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়।

মারা যাওয়া বাবলুর বাড়ি উপজেলার মশিপুর গ্রামে। তিনি পোতাজিয়া গ্রামে শ্বশুরবাড়ির পাশে ভাড়া বাড়িতে স্ত্রীকে নিয়ে থাকতেন।

বাবলুর স্ত্রী আনোয়ারা বেগম জানান, শনিবার সন্ধ্যায় তার স্বামী বাবলু বাড়ির পাশেই পোতাজিয়া বাজার থেকে পান ও সুপারি কিনে বাড়িতে রেখে আবার বাজারে যান। রাতে তিনি আর ফেরেননি।

আনোয়ারা বেগম আরও  জানান, তার স্বামী মাঝে মধ্যেই রাত করে বাড়ি ফিরতেন। এদিন রাতে খোঁজাখুঁজি করে স্বামীকে না পেয়ে তিনি ঘুমিয়ে পরেন। সকালে জানতে পারেন তার স্বামীর মরদেহ বাড়ির থেকে ৫০ গজ দূরে নেপিয়ার ঘাসের জমির মধ্যে পড়ে আছে । তখন তিনি চিৎকার দিয়ে সেখানে ছুটে যান।

 শাহজাদপুর থানার পুলিশ পরিদর্শক (অপরেশন) মো. আব্দুল মজিদ জানান , রোববার সকালে ৯৯৯ এ খবর পেয়ে সাড়ে ৮টায় পোতজিয়া গ্রাম থেকে ভ্যান চালক বাবলুর লাশ উদ্ধার করা হয় । পরে ময়না তদন্তের জন্য সিরাজগঞ্জ ২৫০ শয্যার বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এঘটনায় নিহতের স্ত্রী আনোয়ারা বেগম বাদী হয়ে শাহজাদপুর থানায় একটি মামলা করেছেন বলেও জানান এই পুলিশ কর্মকর্তা।