ঢাকা শনিবার, ২৫ মে ২০২৪

ভ্যানের চাকায় ওড়না পেঁচিয়ে নারীর মৃত্যু

ভ্যানের চাকায় ওড়না  পেঁচিয়ে নারীর মৃত্যু

দুর্ঘটনাস্থলে ভিড় করেন স্থানীয়রা

নীলফামারী প্রতিনিধি

প্রকাশ: ০৫ এপ্রিল ২০২৪ | ০১:৪৩ | আপডেট: ০৫ এপ্রিল ২০২৪ | ০৫:১৪

নীলফামারীর জলঢাকায় ঈদের কেনাকাটা শেষে বাড়ি ফেরার পথে ভ্যানের চাকায় ওড়না পেঁচিয়ে গলায় ফাঁস লেগে রাবেয়া বেগম (২৫) নামে এক নারীর মৃত্যু হয়েছে। বৃহস্পতিবার উপজেলার দক্ষিণ বেরুবন্ধ ময়দানের পার এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। রাবেয়া তেলিপাড়া গ্রামের সবুজ হোসেনের স্ত্রী। তিনি ঢাকায় গার্মেন্ট কারখানায় চাকরি করতেন।

পুলিশ, প্রত্যক্ষদর্শী ও স্থানীয়রা জানান, বৃহস্পতিবার রাবেয়া তাঁর ননদ সোনালী আক্তারকে সঙ্গে নিয়ে ঈদের কেনাকাটা করতে উপজেলার মীরগঞ্জ বাজারে যান। কেনাকাটা শেষে বাড়ি যাওয়ার জন্য ব্যাটারিচালিত ভ্যানে ওঠেন। ভ্যানটি দক্ষিণ বেরুবন্ধ ময়দানের পার এলাকায় পৌঁছালে তাঁর ওড়নার অংশ ভ্যানের চাকায় পেঁচিয়ে যায়।
এতে ওড়নার অপর অংশে গলায় ফাঁস লাগে রাবেয়ার। এ সময় তিনি সড়কে পড়ে গিয়ে আহত হন। স্থানীয়রা তাঁকে উদ্ধার করে নীলফামারী জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন।

চোখের সামনে এমন দৃশ্য ভুলতে পারছেন না সোনালী আক্তার। তিনি বলেন, ভাই ও ভাবি দু’জনই গার্মেন্টে কাজ করেন। এ বছর ঈদের ১০ দিন আগে ভাবি ছুটি নিয়ে বাড়িতে চলে আসেন। ঈদের আগের দিন ভাইয়েরও আসার কথা। সবার আনন্দের সীমা ছিল না। এরই মধ্যে ঈদের কেনাকাটা শেষে তারা বাড়ি ফেরার পথে এমন ঘটনা ঘটে গেল।

শিমুলবাড়ী ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান হামিদুল হক নারীর মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। জলঢাকা থানার ওসি মুক্তারুল আলম বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। আইনি প্রক্রিয়া শেষে মরদেহ স্বজনের কাছে হস্তান্তর করা হবে।
 

আরও পড়ুন

×