ঢাকা বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪

পাওনা টাকার জন্য গিয়ে লাশ হলেন জাফলংয়ের পাথর ব্যবসায়ী

পাওনা টাকার জন্য গিয়ে লাশ হলেন জাফলংয়ের পাথর ব্যবসায়ী

ফাইল ছবি

গোয়াইনঘাট (সিলেট) প্রতিনিধি

প্রকাশ: ১২ জুন ২০২০ | ০৩:৩৯

পাওনা টাকার জন্য গিয়ে লাশ হয়েছেন সিলেটের জাফলংয়ের পাথর ব্যবসায়ী আবুল কালাম।

বৃহস্পতিবার মোগলাবাজারে অজ্ঞাতপরিচয় হিসেবে তার লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। পরে গণমাধ্যমে ছবিসহ খবর প্রকাশ হলে পরিবারের লোকেরা তাকে শনাক্ত করেন।

নিহত আবুল কালাম (৫০) গোয়াইনঘাট উপজেলার পূর্বজাফলং ইউনিয়নের কান্দুবস্তি গ্রামের বাসিন্দা।

তিনি মোগলাবাজার এলাকার এক ব্যক্তির কাছে পাওনা টাকা চাইতে গিয়েছিলেন বলে জানায় পরিবার। 

নিহতের পরিবার জানায়, প্রায় ত্রিশ বছর ধরে আবুল কালাম জাফলং এলাকায় পাথরের ব্যবসা করে আসছিলেন। কোয়ারি থেকে পাথর কিনে তা বিক্রি করাই ছিল তার ব্যবসা। গত কয়েকদিন ধরে মোগলাবাজার এলাকার এক ব্যবসায়ীর কাছে পাথর সরবরাহ করে আসছিলেন তিনি। বুধবার বিকেলে পাথর বিক্রির বকেয়া টাকার জন্য মোগলাবাজার এলাকার ওই লোকের কাছে যান আবুল কালাম। 

এরই মধ্যে বৃহস্পতিবার সকালে সিলেট-ফেঞ্চুগঞ্জ সড়কের পাশে ষাটঘর এলাকা থেকে লাশ উদ্ধার করে মোগলাবাজার থানা পুলিশ। পরে ময়নাতদন্তের জন্য লাশ সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। তাকে বুধবার রাতের কোন একসময়ে হত্যা করে রাস্তার পাশে ফেলে রাখা হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। 

খবর পেয়ে শুক্রবার সকালে নিহতের ভাতিজা মো. সুমন মিয়া মরদেহটি তার চাচা আবুল কালামের বলে শনাক্ত করেন। সুমন বলেন, পাওনা টাকার জন্য গিয়ে আমার চাচা লাশ হয়ে ফিরলেন। 

এ ব্যাপারে মোগলাবাজার থানার ওসি আক্তার হোসেন বলেন, মরদেহের শরীরে বাহ্যিক কোন আঘাতের চিহ্ন নেই। তারপরও বিষয়টি গুরুত্বের সঙ্গে তদন্ত করা হচ্ছে। ময়নাতদন্ত রিপোর্ট পেলে হত্যাকাণ্ড কি না তা জানা যাবে।

আরও পড়ুন

×