ঢাকা শনিবার, ১৮ মে ২০২৪

ভাতা আত্মসাৎ করায় ইউপি সদস্য বরখাস্ত

ভাতা আত্মসাৎ করায় ইউপি সদস্য বরখাস্ত

ইলিয়াস আলী

তাড়াশ (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধি

প্রকাশ: ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২১ | ১০:০৭ | আপডেট: ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২১ | ১০:০৯

তাড়াশে মৃত ব্যক্তিকে জীবিত দেখিয়ে এক বছরের ভাতার টাকা আত্মসাৎ করায় ইউপি সদস্য ইলিয়াস আলীকে সাময়িকভাবে বরখাস্ত করা হয়েছে।

গত ২৬ সেপ্টেম্বর স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের স্থানীয় সরকার বিভাগ ইউনিয়ন পরিষদ শাখা-১-এর উপসচিব আবু জাফর রিপন স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে এ তথ্য নিশ্চিত করা হয়েছে।

জানা যায়, উপজেলার ২ নম্বর বারুহাঁস ইউনিয়নের ৭ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য ইলিয়াস আলী বিনসাড়া গ্রামের মৃত অনিল চন্দ্র বাদ্যকরের স্ত্রী ফুলকুমারী বয়স্ক ভাতাভোগী হিসেবে তালিকাভুক্ত হন। এক বছর আগে ফুলকুমারী মারা গেলে অভিযুক্ত ইউপি সদস্য ইলিয়াস আলী তার নিজ মোবাইল নম্বর দিয়ে কৌশলে ব্যাংক এশিয়ার মাধ্যমে এক বছরের ভাতার টাকা তুলে আত্মসাৎ করেন।

এ বিষয়ে মৃত ফুলকুমারীর ছেলে চিনি বাদ্যকর তাড়াশের ইউএনও ও ইউপি চেয়ারম্যান বরাবর প্রতিকার চেয়ে আবেদন করেন। এ নিয়ে সমকালসহ বিভিন্ন গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশিত হলে গত ১৩ জুলাই ইউএনও তিন সদস্যের তদন্ত টিম গঠন করেন। তদন্ত কমিটি প্রতিবেদন দাখিল করলে দেখা যায় ইউপি সদস্য ইলিয়াস আলী স্থানীয় সরকার (ইউনিয়ন পরিষদ) আইনের আওতায় অপরাধ করেছেন। তাই তাকে সাময়িকভাবে বরখাস্ত করা হয়। এ ছাড়া কেন তাকে চূড়ান্তভাবে অপসারণ করা হবে না তা ১০ কার্যদিবসের মধ্যে সিরাজগঞ্জ জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে জবাব দিতে বলা হয়।

এ প্রসঙ্গে অভিযুক্ত ইউপি সদস্য ইলিয়াস আলী বলেন, কারণ দর্শানোর নোটিশ পেয়েছি। আইনি প্রক্রিয়ায় এর জবাব দেওয়া হবে।

বারুহাঁস ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোক্তার হোসেন মুক্তা বলেন, ঘটনাটি তার জন্য লজ্জাজনক। তবে এ-সংক্রান্ত কোনো চিঠি পাননি। সাংবাদিকদের মাধ্যমে ঘটনাটি জেনেছেন।

ইউএনও মেজবাউল করিম বলেন, স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ের দেওয়া সাময়িক বরখাস্তের চিঠি পেয়েছেন। অভিযুক্ত ইউপি সদস্য ইলিয়াস আলীকে ইতোমধ্যে বরখাস্ত করার নোটিশ দেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন

×