অসুস্থতার মধ্যেও স্বস্তিতে খালেদা জিয়া

প্রকাশ: ২৬ মার্চ ২০২০   

সমকাল প্রতিবেদক

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

কারাগার থেকে নিজ বাসায় ফেরার পর থেকে কোয়ারেন্টাইনে আছেন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। কারও সঙ্গে দেখা পর্যন্ত করছেন না তিনি। শুধুমাত্র তার ব্যক্তিগত সেবিকা শাকিলা ও গৃহকর্মী ফাতেমা বেগম তার দেখাশোনা করছেন।

গুলশানে খালেদা জিয়ার বাসভবন ফিরোজায় কর্মরত একজন কর্মকর্তা সমকালকে জানান, খালেদা জিয়া তার রুম থেকে কখনো নীচে নামছেন না কিংবা কেউ দ্বিতীয়তলায় উঠছেন না। পরিচর্যা আর সেবার জন্য সেবিকা ও গৃহকর্মী তার কাছাকাছিই থাকছেন। তারাও কেউ নীচে নামেন না। খালেদা জিয়ার ডায়াবেটিক পরীক্ষার জন্য প্রতিদিন রক্ত পরীক্ষা করানো হচ্ছে। 

তিনি বলেন, দীর্ঘ সময় ধরে কারাগারে থাকার কারণে শারীরিকভাবে খালেদা জিয়া অনেক অসুস্থ। তবে পরিবার পরিজন আর মুক্ত বাতাসে আসার পর তিনি অনেকটা স্বস্তিতে আছেন। মানসিকভাবে তিনি অনেকটা ভালো আছেন।

বৃহস্পতিবার দুপুরে পৃথকভাবে খালেদা জিয়ার ভাবি কানিজ ফাতেমা, ভাগ্নে ডা. মামুন এবং বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান ডা. এজেডএম জাহিদ হোসেনসহ তিনজন চিকিৎসক তার শারীরিক খোঁজ খবর নিতে তার বাসভবনে যান।

ডা. এজেডএম জাহিদ হোসেন সমকালকে বলেন, খালেদা জিয়ার শরীর তেমন একটা ভালো নেই। বিগত দিনে দলের পক্ষ থেকে এবং পরিবারের পক্ষ থেকে খালেদা জিয়ার অসুস্থতা নিয়ে যেসব কথা বলা হয়েছে তার প্রত্যেকটি সত্যি ছিলো। যার প্রমাণ গত বুধবার দেশবাসী দেখেছেন। এখন তিনি কঠোরভাবে কোয়ারেন্টাইন মেনে চলছেন। মোট ১৪দিন তিনি এভাবে থাকবেন। এর মধ্যে তার চিকিৎসাও চলবে। ইতিমধ্যে উন্নত চিকিৎসা শুরু করা হয়েছে বলেও তিনি জানান।

তিনি বলেন, কোয়ান্টোইনের মধ্যে তার কাছে যাওয়া যাচ্ছে না। তবে তার উপসর্গ অনুযায়ী চিকিৎসা চলছে। করোনা প্রভাব কেটে গেলে পুরোদমে তার চিকিৎসা শুরু করা হবে।