খেলোয়াড়দের বেতন কাটবে ক্লাব, কতটা যৌক্তিক?

প্রকাশ: ২৮ মার্চ ২০২০   

অনলাইন ডেস্ক

ছবি: ফাইল

ছবি: ফাইল

ইউরোপের শীর্ষ পর্যায়ের ফুটবল লিগ স্থগিত হয়ে আছে। কবে এটা আবার শুরু হবে বলা মুশকিল। মৌসুম থেমে থাকায় ক্লাবগুলো তাই বড় ক্ষতির মুখে পড়ছে। এ অবস্থায় তারা ফুটবলারদের বেতন কাটার সিদ্ধান্ত নিচ্ছে। স্প্যানিশ ফুটবল ক্লাব বার্সেলোনা এরই মধ্যে ইআরটিই (টেম্পোরারি ওয়ার্কফোর্স অ্যাডজাস্টমেন্ট প্লান বা অস্থায়ী কর্মশক্তি সমন্বয় পরিকল্পনা) ফর্ম পূরণ করেছে। যাতে ফুটবলারদের বেতন কাটতে পারে।

কেনো বার্সা এই ইআরটিই ফর্ম পূরণ করেছে? 

করোনাভাইরাসের কারণে ফুটবল থেমে আছে। বার্সেলোনা ক্ষতির মুখে পড়ছে। তারা ম্যাচের টিকিট বিক্রি, টিভি শর্ত, পণ্য বিক্রি, বার্সার জাদুঘর ও স্টেডিয়াম দর্শন প্রভৃতি থেকে অর্থ আয় করতে পারছে না। সেজন্য খেলোয়াড়দের বেতন কেটে বার্সা তা পূরণ করতে চায়।

এটা কী আইন সম্মত?

স্পেনে আরও অনেক ব্যবসায়ী ক্ষতির হাত থেকে বাঁচতে এটা করে থাকেন। দেশটিতে তাই এটা আইন সম্মত।

শুধু কি প্রথম একাদশে খেলা ফুটবলারদের বেতন কাটা হবে?

ইআরটিই অনুযায়ী, ক্লাবের সকল ফুটবলার এবং ক্লাবে চাকরি করা সকলের বেতন কাটা হবে। প্রথম একাদশের খেলোয়াড় তো বটেই যারা ক্লাবের সঙ্গে সম্পৃক্ত কিন্তু ফুটবলের সঙ্গে না তাদেরও বেতন কাটা যাবে। 

কত ভাগ বেতন কাটা হবে? 

বার্সেলোনা বেতনের ৭০ ভাগ কেটে নেওয়ার জন্য ইআরটিই পূরণ করেছে। অর্থাৎ কোন ফুটবলার যদি বছরে এক কোটি ২০ লাখ ইউরো বেতন পান বার্সা তাকে ৩০ লাখ ইউরো বেতন দেবে। তবে খেলা শুরু হয়ে যেতেই ফুটবলাররা আগের মতোই বেতন পাবেন।

খেলোয়াড়রা কি রাজী?

বার্সার বেতন কাটর শর্তে মত দিয়েছেন মেসি-সুয়ারেজরা। তবে তারা কত শতাংশ বেতন কাটার শর্তে রাজী হয়েছেন তা বলা যাচ্ছে না। সংবাদ মাধ্যম মার্কার তথ্য অনুযায়ী, তারা ১০ শতাংশ বেতন কাটার পক্ষে। বার্সার দাবির সঙ্গে যার ঢের পার্থক্য। যদি ফুটবলার এবং ক্লাব বেতন নিয়ে একমত না হয়, তবে নিয়ম অনুযায়ী, একটা বেতন কেটে নেবে বার্সা।

ফিফার নিয়মে বেতন কাটা কি যৌক্তিক? 

ফিফার নিয়মে এটা অযৌক্তিক না। ফিফা সুপারিশ করেছে ফুটবল চালু না হওয়া পর্যন্ত ক্লাব ৫০ শতাংশ বেতন কাটতে পারবে। তবে কিছু ক্লাব ২০ শতাংশ বেতন কাটার পক্ষে মত দিয়েছিল। ফিফার ৫০ শতাংশ বেতন কাটার সুপারিশ তাই বিতর্ক ছড়াচ্ছে।