সুন্দরবনে রাস উৎসব বাতিল

প্রকাশ: ০৮ নভেম্বর ২০১৯      

মোংলা (বাগেরহাট) প্রতিনিধি

ফাইল ছবি

ঘূর্ণিঝড় 'বুলবুল'র প্রভাবে সৃষ্ট দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার পরিপ্রেক্ষিতে সুন্দরবনের দুবলারচরের আলোর কোলে অনুষ্ঠেয় শত বছরের ঐতিহ্যবাহী রাস উৎসবের এবারের আয়োজন বাতিল ঘোষণা করা হয়েছে। 

শুক্রবার দুপুরে বাগেরহাট জেলা প্রশাসন কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত জেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমিটির সভায় এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। রাস উৎসব আয়োজক কমিটির নেতারা ও পূর্ব সুন্দরবনের বিভাগীয় বন কর্মকর্তা (ডিএফও) এ খবরের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

প্রতিবছর কার্তিক পূর্ণিমা তিথিতে এ উৎসব পালন করা হয়। তিথি অনুযায়ী এবার আগামী ১০ থেকে ১২ নভেম্বর পর্যন্ত এ উৎসব আয়োজনের সব প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছিল।

হিন্দু সম্প্রদায়ের মানুষ মনে করেন, তাদের দেবতা শ্রীকৃষ্ণ এখানে এসে পুণ্যস্নান করেছিলেন। তাই বহু বছর ধরে তারাও তা করে আসছেন। ধর্মীয় ভক্তি-শ্রদ্ধায় হিন্দু সম্প্রদায়ের লোকজন প্রায় দুই যুগ ধরে জাঁকজমকভাবে পালন করে আসছেন দুবলারচরের এই রাস উৎসব। উৎসবটি মূলত হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের হলেও এটি এখন সব ধর্মের মানুষের মিলনমেলায় পরিণত হয়েছে।

দুবলারচর রাস উৎসব জাতীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক প্রদীপ কুমার বসু ও সহ-সভাপতি বাবুল সরদার বলেন, জানমালের নিরাপত্তার বিবেচনায় পুণ্যার্থী, পূজারী ও দর্শনার্থীকে এবার দুবলার রাস উৎসবে যাত্রা থেকে বিরত থাকার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের কারণে দুর্যোগের আশঙ্কায় এবারের রাস উৎসব বাতিল ঘোষণা করা হয়েছে। তবে উৎসব না হলেও সংক্ষিপ্ত পরিসরে মন্দিরে পূজা ও ধর্মীয় আচার অনুষ্ঠান পালিত হবে।

বাগেরহাটের জেলা প্রশাসক মো. মামুনুর রশীদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমিটির ওই সভায় পুলিশ সুপার পঙ্কজ চন্দ্র রায়, জেলার নয়টি উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা, ফায়ার সার্ভিস, পানি উন্নয়ন বোর্ড, রেড ক্রিসেন্ট, সিপিপিসহ বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার প্রতিনিধিরা অংশ নেন।

পূর্ব সুন্দরবনের বিভাগীয় বন কর্মকর্তা মাহমুদুল হাসান জানান, দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার কারণে জেলা প্রশাসন ও মেলা আয়োজক কমিটির সিদ্ধান্ত অনুযায়ী এবার রাস উৎসব অনুষ্ঠান বাতিল করা হয়েছে।