ঢাকা শনিবার, ১৮ মে ২০২৪

ছবির প্রচারে কলকাতায় অভিনেতা রাজকুমার রাও

ছবির প্রচারে কলকাতায় অভিনেতা রাজকুমার রাও

কলকাতা সংবাদদাতা

প্রকাশ: ১৮ মার্চ ২০২৩ | ০৯:২৮ | আপডেট: ১৮ মার্চ ২০২৩ | ১০:০০

আগামী ২৪ মার্চ ভারতব্যাপী মুক্তি পেতে চলেছে রাজকুমার রাও অভিনীত ও পরিচালক অনুভব সিনহা পরিচালিত বলিউড ছবি 'ভিড়'। তার আগে ছবির প্রচারণায় কলকাতায় এলেন রাজকুমার রাও। কলকাতা সংলগ্ন আগরপাড়া নারুলা ইনস্টিটিউট অব টেকনোলজি এবং জেআইএস ইউনিভার্সিটি ক্যাম্পাসে ছবির প্রচার সারেন এই অভিনেতা।

ছবির মুখ্য ভূমিকায় অভিনয় করেছেন রাজকুমার রাও এবং ভূমি পেডনেকর, পঙ্কজ কাপুর, দিয়া মির্জা, কৃতি কামরা। করোনা এবং লকডাউনের সেই ভয়াবহ স্মৃতি, ১৯৪৭ সালে দেশভাগের পর ভারতের সবচেয়ে বড় মাইগ্রেশনের বিবরণ উঠে এসেছে এই ছবিতে। ভারতব্যাপী রাতারাতি লকডাউন ঘোষণার পর রাজ্যগুলোর মধ্যে তৈরি হয়েছিল কঠিন সীমানা, সেই সীমানা ভেদ করে নিজের রাজ্যে ঘরে ফিরতে পরিযায়ী শ্রমিকদের যে যন্ত্রণা কষ্টের মধ্যে দিয়ে যেতে হয়েছে এই ছবিতে সেটাই তুলে ধরা হয়েছে। তাঁদের কীভাবে মারধর করা হয়েছে, তাঁদের গায়ে জীবাণুনাশক ছড়ানো হয়েছে- সেই সব দৃশ্য ছবিতে দেখানো হয়েছে। ছবিতে দেখানো হয়েছে কীভাবে গুজব ছড়ানো হয়েছে করোনা ভাইরাস তাবলিগ জামায়াতের তরফে ছড়ানো হচ্ছে। সবমিলিয়ে এই ছবিতে মহামারি সময় লকডাউনের কারণে গোটা ভারতজুড়ে যে ভয়ঙ্কর পরিস্থিতি তৈরি হয়েছিল সেটাই তুলে ধরা হয়েছে।

ছবিতে রাজকুমার রাওকে একজন পুলিশের চরিত্রে দেখা যাবে। এখানে তাঁকে দুঃস্থ, গরিবদের জন্য লড়াই করতে দেখা যাবে। কৃতি কামরা একজন সাংবাদিকের চরিত্রে অভিনয় করেছেন যিনি এই লকডাউন, মহামারির সময়টাকে দেশভাগের সঙ্গে তুলনা করেছেন। ছবিতে ভূমি পেডনেকরকে দেখা যাবে চিকিৎসকের চরিত্রে। সম্পূর্ণ ছবিটি সাদা কালো ফ্রেমে দেখা যাবে।

রাজকুমার রাও এই ছবির প্রচারে কলকাতায় এলে ক্যাম্পাস চত্বরে অনুরাগীদের মধ্যে উন্মাদনা দেখা যায়। তাঁকে উত্তরীয় পরিয়ে সম্মান জানানো হয়। নিজের ছবি ‘ভিড়’ নিয়েও কথা বলেন তিনি। তিনি বলেন ,'খুব সুন্দর সিনেমা, সাদা কালো ফ্রেমে তৈরি হয়েছে এবং সিনেমা হলে আসতে চলেছে।  আমরা সবাই সেই সময় নিজের নিজের ঘরে বন্দি ছিলাম এবং প্রার্থনা করছিলাম যতদ্রুত সম্ভব এই সময় কেটে যাক। অবশেষে সব ঠিকঠাক হয়েছে বলে মনে হচ্ছে কিন্তু সব ঠিক হয়নি। প্রকৃতির সামনে আমরা কিছুই না। এই ছবিতে আমি একজন পুলিশ অফিসারের ভূমিকায় অভিনয় করছি যাকে একটা বন্দোবস্তের ডিউটি দেয়া হয়। যেখানে লকডাউনের সময় যখন রাজ্যের সীমান্ত বন্ধ হয়ে যায় তখন সেখানে অনেক মানুষের ভিড় জমে যায়'।

এই ছবি নিয়ে ইতোমধ্যেই বিতর্ক শুরু হয়েছে। ট্রেলার মুক্তির পরই সমালোচনার ঝড় ওঠে। অনেকের দাবি, এই ছবি দেশের বিরোধিতা করছে। কেউ কেউ আবার বলছেন ছবিটি একটু ‘বেশিই গণতান্ত্রিক’। বিতর্কের মুখে ট্রেলার মুক্তির এক সপ্তাহের মধ্যেই টি সিরিজের ইউটিউব চ্যানেল থেকে তা সরিয়ে দেওয়া হয়।

পরিচালক অনুভব সিনহা এর আগেও তার প্রতিটা ছবিতেই সমাজের এমন কিছু বাস্তব সত্যকে তুলে ধরতে চেয়েছেন যেটা তার ছবির ইউএসপি। ২০১৯ সালে' আর্টিকেল ১৫' , ২০১৮ সালে 'মূলক দুই হাজার কুড়িতে থাপ্পর' আর ২০২৩ সালে 'ভিড়'- সব ছবিতেই তিনি কোনো না কোনো সামাজিক প্রেক্ষাপটকে তুলে ধরার চেষ্টা করেছেন।

আরও পড়ুন

×