ঢাকা বুধবার, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৪

বিএনপির ভোট বর্জনের কর্মসূচি আচরণবিধি ভঙ্গের শামিল: নাছিম

বিএনপির ভোট বর্জনের কর্মসূচি আচরণবিধি ভঙ্গের শামিল: নাছিম

প্রতিবন্ধীদের শোভাযাত্রায় বাহাউদ্দিন নাছিম

সমকাল প্রতিবেদক

প্রকাশ: ৩০ ডিসেম্বর ২০২৩ | ১৭:৫৩ | আপডেট: ৩০ ডিসেম্বর ২০২৩ | ২০:০৪

বিএনপি-জামায়াতের ভোট বর্জনের কর্মসূচি নির্বাচনী আচরণবিধি ভঙ্গের শামিল বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও ঢাকা-৮ আসনে দলের মনোনীত প্রার্থী কৃষিবিদ আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম। তিনি বলেন, বিষয়টি নির্বাচন কমিশনের ওপর ছেড়ে দিতে চাই। নির্বাচনী আচরণবিধি ভঙ্গের অধিকার কারো নেই। 

শনিবার সকালে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে তিনি এসব কথা বলেন।

ক্ষমতার পরিবর্তন হলে আওয়ামী লীগ নেতাদের ফাঁসি হতে পারে- রেজা কিবরিয়ার এমন বক্তব্যের জবাবে তিনি বলেন, রেজা কিবরিয়া সাহেবদের হাতেই আইন। ওনারাই গণতন্ত্র শেখান। ওনাদের এমন উক্তি কতটা গণতান্ত্রিক আর কতটা স্বৈরাচারী- এটা বিবেচনা করার মতো ক্ষমতা ও যোগ্যতা দেশের জনগণের আছে। ওনারাই সিভিল সোসাইটি নামে নিজেদের পরিচয় দেয়। এদের সম্পর্কে দেশের মানুষ জানতে পারবে। 

নির্বাচনের চ্যালেঞ্জ সম্পর্কে জানতে চাইলে তিনি বলেন, নির্বাচনে আমি সবকিছুই চ্যালেঞ্জ হিসেবে নিয়েছি। আওয়ামী লীগ জনগণের দল, নির্বাচনী দল। তারা সব নির্বাচনে অংশগ্রহণ করে এবং জয়লাভের জন্য আপ্রাণ চেষ্টা চালায়। আমি আমার প্রতিদ্বন্দ্বী যারা রয়েছে তাদের সবাইকে গুরুত্ব সহকারে দেখি। নির্বাচনে ভোটকেন্দ্রে ভোটার আসা প্রয়োজন। ভোটাধিকার প্রয়োগ একটি নাগরিক অধিকার এবং দায়িত্ব। দুটো বিষয়ে আমরা মানুষকে বোঝানোর চেষ্টা করি। 

তিনি বলেন, আমি খুব সতর্কতার সঙ্গে আচরণবিধি মেনে চলতে চাই। ঢাকা-৮ আসন শুধু নয়, সারা বাংলাদেশে আমাদের নেতাকর্মীদের প্রতি আমার আহ্বান ও অনুরোধ থাকবে, সবাইকে আচরণবিধি মেনে চলতে হবে। আমার অজান্তে যারা নির্বাচনী আচরণবিধি না মেনে কার্যক্রম করে হয়তো তারা অতি উৎসাহী হয়ে এসব কাজ করছে। আচরণবিধি লঙ্ঘন হয় এমন কর্মকাণ্ড করে আমাকে বা আওয়ামী লীগকে প্রশ্নবিদ্ধ করা কোনো কর্মীর উচিত নয়।

বাহাউদ্দিন নাছিম বলেন, আমরা শান্তিপূর্ণ ও সুন্দর নির্বাচন চাই। নির্বাচনে ভোটাররা আসবে, পছন্দের প্রার্থীকে ভোট দেবে। আওয়ামী লীগ ও তার সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা নির্বাচনকে কেন্দ্র করে ভোটারদের বাড়ি বাড়ি গিয়ে ভোট প্রার্থনা করছে। তারা বিপনিবিতান, শিক্ষা-প্রতিষ্ঠানসহ সব জায়গায় যাচ্ছে এবং সবাই কাজ করছে। মনে হচ্ছে, এ যেন এক উৎসব। ৫ বছর পর ভোটাররা ভোট দেবে। আমরা তাদের ভোট পাওয়ার চেষ্টা করছি। আমরা জনগণের ভোট পাওয়ার মধ্য দিয়ে নির্বাচিত হতে চাই। যদি জনগণ আমাদের ভোট না দেয় তবে তো আমরা নির্বাচিত হতে পারবো না।

এর আগে শনিবার সকাল ৯টায় কমলাপুর এলাকা থেকে বাহাউদ্দিন নাছিম গণসংযোগ শুরু করেন। পরে ইনস্টিটিউশন অব ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্সে (আইডিইবি) সভা শেষে শান্তিনগরে প্রধান নির্বাচনী কার্যালয়ের সামনে থেকে প্রতিবন্ধীদের শোভাযাত্রায় অংশগ্রহণ করেন। 

এ সময় নির্বাচন পরিচালনা কমিটির আহ্বায়ক আওলাদ হোসেন, আওয়ামী লীগ নেতা কামাল চৌধুরী, মহিউদ্দিন মহি, মিরাজ হোসেন, এনামুল হক আবুল, স্বেচ্ছাসেবক লীগের সহ-সভাপতি শামীম শাহরিয়ার, যুগ্ম-সাধারন সম্পাদক খায়রুল হাসান জুয়েল, সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুল্লাহ আল সায়েম, গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা সম্পাদক ওবায়দুল হক খান, প্রতিবন্ধী উন্নয়ন সম্পাদক আনোয়ার পারভেজ টিংকু, গ্রন্থনা ও প্রকাশনা সম্পাদক কেএম মনোয়ারুল ইসলাম বিপুলসহ বিপুল সংখ্যক নেতাকর্মী শোভাযাত্রায় অংশ নেন।

আরও পড়ুন

×